দেশেরসময় ওয়েবডেস্ক: গোলাপ- ভালবাসার সুরভি ছড়িয়ে দেয় অন্তর থেকে অন্তরে আর তাই গোলাপ ছাড়া পুরোপুরি বেমানান প্রেম দিবস। সেই জন্য বরাবরই প্রেম দিবসের দিন গোলাপের দাম থাকে আকাশছোঁয়া। আগের বারের তুলনায় এবার অবশ্য দাম অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে থাকবে বলে মনে করে ছিলেন ফুলচাষি, ব্যবসায়ীরা। কারণ, এবার গোলাপ ফুলের চাহিদার মতো উৎপাদনটাও সর্বাধিক। উওর২৪পরগনার গাইঘাটা,ঠাকুরনগর,
কোলাঘাট ও পাঁশকুড়া ব্লকের খন্নাডিহি, পুলসিটা, পাঁশকুড়া ১ অঞ্চল, কেশাপট ও মাইসরা এলাকায় বিঘার পর বিঘা জমিতে চাষ হয় গোলাপ ফুলের। দুই এলাকার ২৫ হাজার ফুল চাষির প্রায় সিংহভাগই জড়িত গোলাপ ফুল চাষের সঙ্গে। কংসাই নদীর পাড় বরাবর চলতে গেলেই মনে হবে বিস্তীর্ণ নদীপাড়ে কারা যেন বিছিয়ে দিয়ে গেছে লাল কার্পেট। গোটা এলাকায় শুধু গোলাপ বাগান!‌ঠাকুর নগর ফুল চাষি ও এক ব্যবসায়ীর কথায়, ‘‌উপযোগী

আবহাওয়ার জন্য এবার গোলাপ উৎপাদন বিগত বছরের তুলনায় অনেক বেশি। তাই গোলাপের চাষ ও ব্যবসায় যুক্ত মানুষ এবার খুশি। উৎপাদন বাড়ায় চাষিরা যেমন লাভের মুখ দেখতে পাবেন, বাজারে বিক্রিও বেড়েছে ।’‌
কিন্তু আজ প্রেম দিবসে দেখা গেল গোলাপ বাজারের ছবিটা এক্কেবারেই উল্টো , বনগাঁয় এক কলেজ পড়ুয়ার কথায়, আজ একটি গোলাপের দাম ২৫টাকা,তবে তাতে তার কিছু যায় আসেনা,আজ তার কাছে টাকার অঙ্ক থেকে ভালবাসার দিনটা অনেক বেশি গুরুত্ব পূর্ণ৷ এবার তারা প্রেম দিবসের ৫ বছর সেলিব্রেট করবে তাই তার ৫টা গোলাপ ১২৫ টাকা দিয়ে কিনতে কোন দ্বিধা নেই। ফুল ব্যাবসায়ীর কথায় এই দিনটার জন্য অপেক্ষা করে থাকি, এদিন একটু অতিরিক্ত লাভ হয়৷ বোঝাই যাচ্ছে ফুলের বাজারে যতই আগুন লাগুক না কেন ,প্রেম দিবসে মনের আগুনের কাছে মৃয়মান।

Previous articleজাতীয় স্তরে একজোটে লড়াই, স্পষ্ট করে দিলেন মমতা
Next articleগাইঘাটায় মতুয়াদের বিক্ষোভ. স্মারকলিপি,নবান্নে বড়মার চিঠি নিয়ে ধন্দ ও দ্বন্দ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here