দেশর সময় ওয়েবডেস্কঃ চিকিৎসকদের পরামর্শও ছিল ক’টা দিন একটু বিশ্রাম নেওয়ার। কিন্তু তৃণমূলের বসিরহাটের সাংসদ তথা অভিনেত্রী নুসরত জাহান বৃহস্পতিবার নিজের সংসদ এলাকায় পৌঁছে জানিয়ে দিলেন, “এখন রেস্ট নেওয়ার সময় নেই। অনেক কাজ পড়ে রয়েছে!”

এদিন একগুচ্ছ কর্মসূচি নিয়ে বসিরহাটের বিভিন্ন যায়গায় ঘুরলেন নুসরত। প্রথমে বসিরহাট সংগ্রামপুরে পুলিস সুপারের অফিসে গিয়ে কঙ্কর প্রসাদ বারুই-সহ জেলা পুলিশের শীর্ষ কর্তাদের সঙ্গে প্রশাসনিক কাজকর্ম নিয়ে বৈঠক করেন।

তারপর বসিরহাটের শিরীষ তলায় দলীয় কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করেন নুসরত। টাকি ও হাড়োয়ায় দুটি অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন বলে জানান। শিগগিরই বসিরহাটের বুলবুল কবলিত এলাকায় যাওয়ার কথাও জানান তিনি।

গত রবিবার ছিল নুসরতের স্বামী নিখিল জৈনের জন্মদিন। নিখিলের বার্থ ডে পার্টিতেই অসুস্থ হয়ে পড়েন নুসরত। তাঁকে ভর্তি করা হয় ইএম বাইপাসের ধারের একটি বেসরকারি হাসপাতালে। সোমবার দিনভর নুসরতের অসুস্থতা নিয়ে নানান জল্পনা তৈরি হয়।

কোনও কোনও মহল থেকে এমনও শোনা যায়, নুসরত একসঙ্গে অনেকগুলি ঘুমের ওষুধ খেয়ে ফেলেছিলেন। যদিও নায়িকার পরিবারের তরফে বলা হয়, শ্বাসকষ্টের সমস্যার কারণেই অসুস্থ হয়েছেন নায়িকা সাংসদ। সোমবার সন্ধেবেলা তাঁকে হাসপাতাল থেকেও ছেড়ে দেওয়া হয়। তা নিয়েও তৈরি হয় আরএক প্রস্থ জল্পনা।

জানা যায়, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সাংসদকে ছুটি দিতে রাজি ছিল না। জানা যায়, ‘ডিসচার্জ এগেন্সট মেডিক্যাল অ্যাডভাইস’-এ সই করিয়ে ছুটি দেওয়া হয়েছে নুসরতকে।

মঙ্গলবার নিজের বাড়ি থেকে নিজের ভক্ত ও দলীয় কর্মীদের উদ্দেশে ভিডিও বার্তা পোস্ট করেন নুসরত। সেখানে তাঁকে বলতে শোনা যায়, “সবাইকে ধন্যবাদ। কোনও চিন্তা করবেন না। আমি ভাল আছি।” একইসঙ্গে বসিরহাটের সাংসদ ওই ভিডিও বার্তায় বলেছিলেন, “কোনও গুজমে কান দেবেন না। শ্বাসকষ্ট বাড়াতেই আমি অসুস্থ হয়েছিলাম। তবে দু’চারদিনের মধ্যেই আবার কাজে ফিরব। অনেক কাজ পড়ে রয়েছে।” এদিন নিজের সংসদ এলাকায় গেলেন তিনি। সংসদে এখন শীতকালীন অধিবেশন চলছে। এখন দেখার, কবে দিল্লি যান নুসরত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here