দেশের সময় বনগাঁ: দীর্ঘদিন পর বিরোধী রাজনৈতিক দলের কর্মসূচিতে সরগরম হয়ে উঠলো বনগাঁ শহর। এনআরসি বাতিল এবং ডিটেনশন ক্যাম্প করতে না দেওয়ার দাবিকে সামনে রেখে সোমবার বনগাঁয় প্রতিবাদ মিছিলে শামিল হল কংগ্রেস, সিপিএম, ফরওয়ার্ড ব্লক, সিপিআই সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল।

সেই মিছিলে নেতৃত্ব দিলেন বামফ্রন্টের চেয়ারম্যান বিমান বসু।নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পাস হওয়ার পর থেকেই দেশজুড়ে বিশেষ করে পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন প্রান্তে শুরু হয়েছে নানা অশান্তি। বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো প্রতিবাদে পথে নেমেছে। এই একই দাবিতে সোমবার বিকেলে বামফ্রন্ট, কংগ্রেস একত্রিত হয়ে প্রতিবাদে নামে।

এদিন বিকেলে বনগাঁ টাউন হল ময়দানে এক প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন বিমান বসু সহ বামফ্রন্টের বিভিন্ন শরিক দল এবং কংগ্রেসের নেতৃত্ব।” বিমান বসু বলেন, কেন্দ্রের বিজেপি সরকার ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করছে।এনআরসির নামে মানুষকে ভীতি প্রদর্শন করছে। আসলে দেশ এখন দেউলিয়া। বাজেট পেশ করতে গিয়ে রিজার্ভ ব্যাংকের ফান্ডে হাত দিতে হচ্ছে কেন্দ্র সরকারকে। এইরকম পরিস্থিতিতে সমস্ত স্তরের মানুষকে প্রতিবাদে পথে নামার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি। ডিটেনশন ক্যাম্প তৈরি করার জন্য জমি দেখা হচ্ছে বলে দাবি করেছেন বিমান বসু।

এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কলকাতায় এনআরসির বিরুদ্ধে প্রতিবাদে শামিল হলেও বনগাঁ ডিটেনশন ক্যাম্প তৈরি করার জন্য জমির ব্যবস্থা করছে তার সরকার। এটা এক প্রকার দ্বিচারিতা। ফলে তা ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়ার আহ্বান জানান বনগাঁ বাসীর উদ্দেশ্যে।”

বক্তব্য রাখেন শহর কংগ্রেস সভাপতি মহিবুল সিদ্দিকী। তার জ্বালাময়ী বক্তব্যে হাততালি দেন উপস্থিত বামপন্থীরাও। সভা শেষে এদিন নীলদর্পণের সামনে থেকে মতিগঞ্জ, যশোর রোড, স্কুল রোড হয়ে খেলাঘর মাঠে শেষ হয় প্রতিবাদ মিছিল। এর পাশাপাশি নিজেদের দাবির সমর্থনে এদিন মহকুমা শাসকের কাছে স্মারকলিপি জমা দেন এক প্রতিনিধিদল।

Previous articleআমার মৃতদেহের উপর দিয়ে ওদের ক্যাব করতে হবে,হুঙ্কার মমতার,নাগরিকত্ব আইনে কারও ক্ষতি হবে না,টুইট করলেন মোদী
Next articleমুখ্যমন্ত্রী-রাজ্যপাল সংঘাত এবার চিঠিতে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here