বিপিন রাওয়াতের ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী ছিলেন দার্জিলিংয়ের তাকদার বাসিন্দা হাবিলদার সৎপাল রাই।

দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ বুধবার দুপুরে তামিলনাড়ুর কুন্নুরে ভেঙে পড়ে সেনাবাহিনীর এমআই১৭-ভি৫ কপ্টার। তাতে ছিলেন চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ তথা তিন বাহিনীর প্রধান বিপিন রাওয়াত। তাঁর মৃত্যু হয়েছে। প্রাণ হারিয়েছেন তাঁর স্ত্রী মধুলিকাও। সেই কপ্টারেই ছিলেন এক বঙ্গসন্তানও।

বিপিন রাওয়াতের ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী ছিলেন হাবিলদার সৎপাল রাই। দার্জিলিংয়ের তাকদার বাসিন্দা তিনি। কপ্টার দুর্ঘটনায় তাঁরও মৃত্যু হয়েছে। এই মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমেছে দার্জিলিংয়ে।

হাবিলদার সৎপাল রাইয়ের মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন দার্জিলিংয়ের সাংসদ রাজু বিস্তা। টুইট করে তিনি লিখেছেন, হাবিলদার সৎপাল রাইয়ের মৃত্যুতে আমি গভীরভাবে শোকাহত। অন্তরের সমবেদনা জানাচ্ছি ওঁর পরিবারকে। তিনি সিডিএস জেনারেল বিপিন রাওয়াতের ব্যক্তিগত সিকিউরিটি অফিসার ছিলেন। ঈশ্বর ওঁর পরিবারকে শক্তি দিন।

ঘন কুয়াশায় মিলিয়ে যাচ্ছে রাওয়তদের কপ্টার, দুর্ঘটনার আগের মুহূর্তের ভিডিয়ো ,দেশের সময়  অনলাইন ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করেনি।

বিপিন রাওয়াতের ওই কপ্টারে ছিলেন মোট ১৪ জন আরহী। তাঁদের মধ্যে ১৩ জনেরই মৃত্যু হয়েছে। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন একমাত্র জীবিত আরোহী ক্যাপ্টেন বরুণ সিং। এই ঘটনায় শোকস্তব্ধ গোটা দেশ।

বুধবার বেলা ১২টা ৪০। তামিলনাড়ুর কুন্নুরে নীলগিরিতে চা বাগানের মাঝে আচমকাই ভেঙে পড়ে একটি সেনার হেলিকপ্টার। তাতে ছিলেন সস্ত্রীক জেনারেল বিপিন রাওয়ত। দুর্ঘটনায় হেলিকপ্টারে সওয়ার ১৪ জনের মধ্যে ১৩ জনেরই মৃত্যু হয়েছে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় গ্রুপ ক্যাপ্টেন বরুণ সিংহ ওয়েলিংটনের সেনা হাসপাতালে ভর্তি।

কুন্নুরের কয়েকজন বাসিন্দা হেলিকপ্টার দুর্ঘটনা চোখে দেখার অভিজ্ঞতা ভাগ করে নিয়েছেন সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে। এ বার প্রকাশ্যে এল জেনারেল রাওয়তের কপ্টারের দুর্ঘটনায় পড়ার ঠিক আগের মুহূর্তের ভিডিয়ো। তাতে দেখা যাচ্ছে, ঘন কুয়াশায় মিলিয়ে যাচ্ছে জেনারেল রাওয়তের কপ্টার। দেশের সময় অনলাইন ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করেনি।

এ দিকে বৃহস্পতিবার বিকেলে তামিলনাড়ুর সুলুর বিমানঘাঁটি থেকে বায়ুসেনার বিশেষ বিমানে জেনারেল রাওয়ত ও তাঁর স্ত্রী মধুলিকার দেহ দিল্লি আনা হবে। শুক্রবার তাঁদের শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here