দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ ডিসেম্বর মাস পড়ে গেলেও মেঘ, বৃষ্টির জেরে স্যাঁতসেতে ঠান্ডা থাকলেও শীতের আমেজ কিন্তু সে ভাবে মিলছে না। আর তাতেই খানিকটা হতাশ আম বাঙালি। প্রশ্ন উঠছে, শীতের চেনা ঝকঝকে আকাশের দেখা কবে মিলবে?

শীত কবে আসবে? নিম্মচাপ আর বৃষ্টিতে তিতিবিরক্ত বাঙালি মুখিয়ে রয়েছে সে দিকেই। এ প্রসঙ্গে আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, আগামী সপ্তাহেই শীতের দেখা মিলবে।

শীত এখনই না পড়লেও রাতের তাপমাত্রা কমবে বলে জানিয়েছে হাওয়া অফিস।

আজ শনিবারের মধ্যরাত থেকেই রাজ্যে তাপমাত্রা নামার ইঙ্গিত হাওয়া অফিসের। ৩-৪ ডিগ্রি মতো তাপমাত্রা নামতে পারে। ফলে ডিসেম্বরের মাঝামাঝি সময়ে এসে ঠান্ডা আবহাওয়া উপভোগ করতে পারেন বঙ্গবাসী। গত সপ্তাহে নিম্নচাপের জেরে তাপমাত্রা একলাফে অনেকটা বেড়ে গিয়েছিল। কিন্তু এখন সেই অবস্থার পরিবর্তন হয়েছে। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, উত্তরবঙ্গ ও দক্ষিণবঙ্গ জুড়েই তাপমাত্রা অনেকটা নিম্নমুখী থাকবে। আগামী কয়েকদিন রাতের তাপমাত্রা ক্রমশ নামবে। সেই সঙ্গে শুষ্ক আবহাওয়া থাকবে। 

এই মুহূর্তের দার্জিলিংয়ের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৬.৯ ডিগ্রি, কালিম্পংয়ের তাপমাত্রা ১১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ফলে উত্তরবঙ্গের ঠান্ডার আমেজ আরও বাড়বে। এই সময়ে প্রচুর পর্যটক উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় বেড়াতে যান। ফলে একপ্রকার তাঁরা ভালো ঠান্ডার আমেজ উপভোগ করতে পারবেন।

রাজ্যে এই মুহূর্তে বৃষ্টিপাতের কোনও সম্ভাবনা নেই। আবহাওয়া মূলত শুষ্কই থাকবে। ভোরের দিকে আংশিক মেঘলা আকাশ থাকলেও, বেলা বাড়তেই তা পরিষ্কার হয়ে যাবে।

সেই সঙ্গে ভোরের দিকে কুয়াশার দাপট দেখা যেতে পারে। ফলে গাড়ি চালকদেরও সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। কুয়াশার প্রভাব পড়তে পারে বিমান চলাচলেও।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here