দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ যে কোনও রাজনৈতিক বা সামাজিক ইস্যুতেই বিশেষ বুদ্ধিমত্তা ও রসবোধের পরিচয় দিয়ে থাকে তারা। নিজেদের বিজ্ঞাপন তো বটেই, সেই সঙ্গে সাধারণ মানুষের প্রশংসাও সংগ্রহ করা হয়ে যায় তাদের। এই বার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এসেছেন ভারতে। তাঁকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রী মোদী-সহ গোটা সরকারের আয়োজন ও উৎসাহের শেষ নেই। এই নিয়েই মজার ছবি তৈরি করে টুইট করল আমূল ইন্ডিয়া। শুধু তাই নয়, এই ছবি-সহ বিজ্ঞাপনী হোর্ডিং ছেয়ে গেছে সারা গুজরাতেও।


দেখা যাচ্ছে, আমূলের কার্টুনে বড় বড় করে লেখা ‘নমস্কে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প’! ট্রাম্পকে নিয়ে যে অনুষ্ঠান আয়োজিত হয়েছিল আমদাবাদে, তার নাম ‘নমস্তে ট্রাম্প’। সেটাকেই একটু অন্য রকম করে নমস্কে ট্রাম্প করে নিয়েছে তারা।
ছবিতে দেখা যাচ্ছে, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে মাখনের মোটা প্রলেপ লাগানো পাঁউরুটি খাওয়ার প্রস্তাব দিচ্ছেন। আর আমূল গার্ল সেই নির্দেশ মেনে হাতে রুটি-মাখনের প্লেট নিয়ে তাঁদের পাশে দাঁড়িয়ে। তার পরনে আবার গুজরাতি স্টাইলে পরা শাড়ি। ছবির ক্যাপশনে লেখা, “ট্র্যাডিশনাল ইন্ডিয়ান ওয়েলকাম”।

দেখুন সেই কার্টুন :


গুজরাতের বিভিন্ন রাস্তায়, মোতেরা স্টেডিয়ামের আশপাশে এই হোর্ডিং দেখা গেছে একাধিক বার। ডেয়ারি সংস্থার এই সূক্ষ্ম রসিকতা দেখে হেসে ফেলেছেন অনেকেই। রসবোধের তারিফও করেছেন সকলে। অনেকেই মনে করছেন, এই কার্টুনের অর্থ দু’টি। প্রথমত, ট্রাম্পের একাধিক ভুল উচ্চারণই যেন অনুকরণ করেছে এই বিজ্ঞাপনী হোর্ডিং। দ্বিতীয়ত, ‘মাস্কা’ শব্দের অর্থ মাখন মাখানো বা তৈলমর্দন। তাহলে কি ভারতে সপরিবারে মার্কিন প্রেসিডেন্টের আগমন একে অন্যকে ‘মাস্কা’ লাগানো ইঙ্গিত করছে আমূল?

নেটিজেনরা বলছেন, কোনও ইঙ্গিতই ফেলে দেওয়া যায় না। হিন্দি শব্দ উচ্চারণ নিয়ে ডোনাল্ড ট্রাম্প তাঁর বক্তৃতায় একাধিক বার হাস্যকর প্রচেষ্টার নিদর্শন রেখেছেন। আবার অনেকেই মনে করছেন, দেশের ব্যবসায়িক স্বার্থ কতটুকু পূরণ হবে তা পুরোপুরি অনিশ্চিত, কিন্তু এত কোটি কোটি টাকা খরচ করে একজন অতিথির এই কাতিরদারি ভারতের মতো দরিদ্র দেশের পক্ষে দৃষ্টি কটু৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here