Weather Update: বাংলা জুড়ে তাপপ্রবাহের সতর্কতা, চলতি সপ্তাহেই বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টির সম্ভাবনা উত্তরের পাঁচ জেলায়!

0
592

দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ চলতি সপ্তাহেও তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি জেলায় জেলায়। রাজ্য জুড়ে তীব্র দাবদাহ।

ইতিমধ্যেই রাজ্যের ১৬টি জেলার তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস পার করেছে। ৪ জেলায় তাপমাত্রার পারদ ৪২ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছুঁয়েছে। তাপমাত্রার পারদ চড়ছে কলকাতাতেও। 

তীব্র গরমের দাপটে যখন নাভিশ্বাস উঠছে বঙ্গবাসীর, তখন বহু কাঙ্ক্ষিত ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস দিল হাওয়া অফিস। বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টি হতে পারে উত্তরবঙ্গের কিছু জেলায়। এমনকি, ভিজতে পারে দক্ষিণবঙ্গও

সোমবার আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, চলতি সপ্তাহেই ভিজতে পারে উত্তরের পাঁচটি জেলা। বৃষ্টি হতে পারে দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার এবং কোচবিহারের কিছু কিছু এলাকায়। তবে উত্তরবঙ্গের বাকি জেলাগুলিতে আপাতত বৃষ্টির সম্ভাবনা নেই। আগামী দু’দিন তাপপ্রবাহ জারি থাকবে মালদহ, উত্তর দিনাজপুর এবং দক্ষিণ দিনাজপুরে।

আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর জানাচ্ছে, সোমবার কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকবে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশেপাশে। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৯.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আগামী কয়েকদিন তাপমাত্রার কোনও হেরফের হবে না।

হাওয়া অফিস এও জানাচ্ছে, শুক্রবার পর্যন্ত তাপপ্রবাহ চলবে রাজ্যজুড়ে। দক্ষিণবঙ্গের সব জেলাতেই তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস থাকতে পারে। উত্তরবঙ্গের মধ্যে শুধুমাত্র মালদহ এবং দক্ষিণ দিনাজপুরে তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করা হয়েছে। 

হাওয়া অফিস জানিয়েছে, আগামী কয়েক দিনে দক্ষিণবঙ্গের কিছু কিছু এলাকায় বিক্ষিপ্ত ভাবে স্থানীয় মেঘ থেকে হালকা বৃষ্টি হতে পারে। বৃহস্পতিবার এবং শুক্রবার ভিজতে পারে পূর্ব মেদিনীপুর। এ ছাড়া, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর, বাঁকুড়ায় শুক্রবার কিছুটা বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। আবহাওয়ার পরিস্থিতি বদলাতে পারে শনিবার থেকে।

দেশের বেশ কিছু রাজ্যে তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করেছে আবহাওয়া দফতর। ইতিমধ্যেই রাজ্যের স্কুল কলেজ ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এবার একই পথে হাঁটলেন প্রতিবেশী রাজ্য ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী মাণিক সাহাও। ত্রিপুরাতেও  বন্ধ রাখা হল স্কুল ৷

রাজ্যজুড়ে  তাপপ্রবাহের কারণে ছাত্র-ছাত্রীদের স্বাস্থ্যের উপর প্রভাব পড়তে পারে। এই বিষয়টি বিবেচনায় রেখে আগামী ১৮ই এপ্রিল,‌ ২০২৩ থেকে ২৩শে এপ্রিল, ২০২৩ পর্যন্ত রাজ্যের সমস্ত সরকারি এবং সরকারি সাহায্যপ্রাপ্ত বিদ্যালয় বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে ত্রিপুরা সরকার। পাশাপাশি রাজ্যের সমস্ত বেসরকারি বিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষের কাছেও এই সময়কালে স্কুল বন্ধ রাখার অনুরোধ জানানো হয়েছে।


আবহাওয়ার পরিবর্তনের প্রক্রিয়া অব্যাহত দেশজুড়ে। গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের কিছু অংশ ত্রিপুরা ওডিশা, বিহার এবং উপকূলীয় অন্ধ্রপ্রদেশের বিচ্ছিন্ন অংশগুলিতে তাপপ্রবাহের অবস্থা বিরাজ করতে চলেছে আগামী কয়েকদিন।পাশাপাশি অন্ধ্র ও ওড়িশায় তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করা হয়েছে। তেলেঙ্গানায় আকাশে মেঘ আছে। তবে কিছু এলাকায় হিটস্ট্রোকের সতর্কতাও জারি করা হয়েছে। রাজধানী দিল্লি সহ বিহার, পশ্চিমবঙ্গ, উত্তরপ্রদেশ, ঝাড়খণ্ড রাজ্যে তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রির কাছাকাছি রয়েছে।

এই পরিস্থিতিতে হাঁসফাঁস অবস্থা। বেশ কিছু রাজ্যে তাপমাত্রা পেরিয়ে গিয়েছে ৪০ ডিগ্রি। আপাতত বৃষ্টির কোনও পূর্বাভাস নেই। তাই পড়ুয়াদের স্বাস্থ্যের কথা ভেবে আগামী সপ্তাহ সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এবার একই সিদ্ধান্ত নিলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীও।

Previous articleMamata Banerjee : তীব্র গরমে সোমবার থেকে রাজ্যের সমস্ত স্কুল-কলেজ ছুটি, ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর
Next articleTheatre : শম্ভু মিত্র ও বিজন ভট্টাচার্য স্মৃতি নাট্য উৎসব ২০২৩

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here