দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ অস্বস্তি বাড়ল মিঠুন চক্রবর্তীর । বাংলায় একুশের বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারে উস্কানিমূলক মন্তব্যের অভিযোগ উঠেছে মিঠুনের বিরুদ্ধে। এই অভিযোগে সুপারস্টারের বিরুদ্ধে মানিকতলা থানায় এফআইআর দায়ের করা হয়েছিল। সেই মামলার শুনানিতে পুলিশের থেকে রিপোর্ট তলব করল শিয়ালদা এসিজেএম আদালত। মিঠুনের বিরুদ্ধে তদন্ত কতদূর অগ্রগতি হয়েছে, এ নিয়ে আদালত জানতে চেয়েছে বলে খবর।

উল্লেখ্য, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ব্রিগেড মঞ্চে পদ্ম পতাকা হাতে তোলেন মিঠুন চক্রবর্তী। তারপর থেকেই জল্পনা ছড়ায় যে, বাংলায় বিজেপি-র মুখ হতে পারেন মিঠুন। এই জল্পনার আবহে কাশীপুর-বেলগাছিয়া কেন্দ্রে বোনের বাড়ির ঠিকানায় ভোটার হিসেবে নাম তোলেন মিঠুন। যার জেরে জল্পনা আরও জল-হাওয়া পায়। কিন্তু, বিজেপি-র প্রার্থী তালিকায় মিঠুনের নাম না থাকায়, সেই জল্পনায় ইতি পড়ে।

বিজেপি-তে যোগদানের পর থেকেই একের পর এক রোড শো-তে ঝড় তুলেছেন মিঠুন। তাঁর মুখে শোনা গিয়েছিল, ‘আমি জলঢোড়াও নই, বেলেবড়াও নেই, আমি জাত গোখরো, এক ছোবলেই ছবি’ রোড শোয়ে ফিল্মি সংলাপ বলতে দেখা যায় মিঠুনকে। ওই সংলাপ নিয়েই আপত্তি ওঠে।

ব্রিগেড মঞ্চে বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার পর পর্দার ‘মিনিস্টার ফাটাকেষ্ট’ বলেছিলেন, ‘আজ আমার কাছে স্বপ্নের মতো। জোড়াবাগানে যেখানে থাকতাম,সেটা একটা অন্ধকার গলি ছিল। সেখানে সেদিন একটা স্বপ্ন দেখেছিলাম, জীবনে কিছু একটা করব। কিন্তু, এই স্বপ্ন দেখিনি যে বিশ্বের সবথেকে বড় গণতন্ত্রের বড় নেতা মোদীজি এই মঞ্চে আসবেন, আর আমি সেখানে থাকব। এটা স্বপ্ন নয় তো কী! অন্ধকার লেনে জন্মানো একটা ছেলে এখানে এসেছে। আরপকটা স্বপ্ন দেখেছিলাম, তখন বয়স ১৮। গরিবদের জন্য কিছু করব। আজ মনে হচ্ছে, সেই স্বপ্নটা দেখতে পাচ্ছি। এটা হবেই। স্বপ্ন শুধু তো দেখার জন্য নয়, সফল হওয়ার জন্য। স্বপ্ন সফল করার উদাহরণ আমি। আমি গর্বিত বাঙালি। দেশবন্ধু চিত্তরঞ্জন, রানি রাসমণি, বিদ্যাসাগর এঁরাই বাঙালি। বাংলায় বসবাসকারী সকলেই বাঙালি।’ এরপরই মিঠুন বলেন, ‘আপনাদের অধিকার কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করবেন যাঁরা, আমাদের মতো অনেকে তাঁরা সামনে এসে দাঁড়াবেন।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here