ভোটকর্মীদের দাবি মেনে নিল কমিশন, নজরবন্দি অনুব্রত

0
750

দেশের সময় ওয়েব ডেস্ক:তিনি একের পর এক যে ভাবে হুমিকি, হুঁশিয়ারি দিচ্ছেন তাতে ওনাকে নজরবন্দি করা হোক। এই রকম আর্জি জানিয়েই ভোটকর্মীরা চিঠি দিয়েছিল নির্বাচন কমিশনকে। সেই দাবি মেনে ভোটগ্রহণ শুরুর কয়েকঘণ্টা আগে বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলকে নজরবন্দি করল নির্বাচন কমিশন। শনিবার সন্ধ্যায় কমিশন থেকে প্রশাসনের কাছে এই নির্দেশ আসে। বলা হয়েছে, মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত নজরবন্দি থাকবেন অনুব্রত।

কমিশন জানিয়েছে, সোমবার সকাল ছ’টা থেকে ভোট শেষ হওয়া পর্যন্ত তাঁর গতিবিধির উপরে সম্পূর্ণ নজরদারি চালাবে নির্বাচন কমিশন। পাশাপাশি গতিবিধির ভিডিওগ্রাফিও করা হবে। বীরভূম জেলার দায়িত্বে থাকা অবজার্ভারের নেতৃত্বে তৈরি হয়েছে একটি কমিটি। সেই কমিটিই নজরদারির কাজ করবে। তিনি কোথায় যাচ্ছেন, কখন যাচ্ছেন তা প্রতি মুহূর্তে ভিডিওগ্রাফি করে কমিশনকে জানাতে হবে এবং তিনি ফোনে কার কার সঙ্গে কথা বলছেন সেটাও জানানোর নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

এটাই প্রথম নয়। ২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনেও নজরবন্দি করা হয় অনুব্রত মণ্ডলকে। সেটাই ছিল রাজ্যে প্রথম ভোটে কাউকে নজরবন্দি করার নজির। সেবার ভোটগ্রহণের ২ দিন আগে নজরবন্দি হয়েছিলেন তিনি।

এবারের নির্দেশ নিয়ে অনুব্রত জানিয়েছেন, “নজরবন্দি করা নিয়ে আমার কিছু যায় আসে না। ভোটের দিন আমি বাড়িতেই থাকি।”

Previous articleবৃষ্টি নয় বরং বাড়বে গরম
Next articleপ্রধানমন্ত্রীর সভার হিসেব নিক কমিশন‌, পূর্ব মেদিনীপুরে প্রশ্ন তুললেন মমতা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here