ছেলের জামিন চাইলেন আক্রান্ত পিতা: নীলাদ্রি ভৌমিক: বারাসত:

0
345
বাবাকে গায়ে হাত দিয়ে পুলিশের জালে আটক হয়েও, আক্রান্ত বৃদ্ধ মানিকলাল বিশ্বাস বৃহস্পতিবার সকালেই হাজির হয়ে যান বারাসত আদালতে। সেখানে অভিযুক্ত পুত্র প্রদীপ বিশ্বাসের জামিন না হলে, আদালতেই আত্মহত্যার হুমকি দেন। অব শেষে গুণধর পুত্রের জামিন মঞ্জুর করেন, বিচারক। উল্লেখ্য, অশোকনগর থানার বিল্ডিং মোড়ে স্ত্রী ও একমাত্র পুত্র প্রদীপ ও তার স্ত্রী সহ বাস করেন মানিকলাল বিশ্বাস। ছেলের অবর্তমানে মানিকবাবু তাঁর স্ত্রী বন্দনাদেবীকে মিষ্টি দেন। এই ঘটনা পুত্রবধূ দেখে ফেলেন। তিনিই তা জানান, স্বামীকে। গত রবিবার বাড়ি ফিরে এ ঘটনায় ক্ষিপ্ত হয়ে বাবাকে বেধরক চড়-চাপড় মারে অশোকনগর-কল্যাণগড় পুরসভার ট্র্যাক্স দফতরের কর্মী প্রদীপ বিশ্বাস। গোটা ঘটনাটি মোবাইলে বন্দি করেন, এক প্রতিবেশী। সেই ছবি আপলোড করে দেওয়া হয় সোশ্যাল মিডিযায়। পরে প্রতিবেশীরা থানায় খবর দিলে, পুলিশ প্রদীপকে গ্রেফতার করে। প্রদীপের দাবি , মা সুগারের রোগী। তাঁর মিষ্টি খাওয়া চিকিৎসকের নির্দেশে বারণ ৷ এতেই রাগের মাথায় গায়ে হাত দিয়ে ফেলেছি৷ এ জন্য অনুতপ্ত। প্রদীপের জামিনের খবরে ক্ষিপ্ত স্থানীয় মানুষ সহ পুরসভার কর্মচারীদের একাংশ।
Previous articleCBI vs CBI … ???
Next articleবাস সংগঠনের অভিনব প্রতিবাদ:

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here