দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ আর যদি কিন্তুর সম্ভবত কোনও অবকাশ নেই। আজ বুধবার বিকেল সাড়ে চারটের সময় নয়াদিল্লির দীনদয়াল উপাধ্যায় মার্গে বিজেপি সদর দফতরে গিয়ে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিজেপি-তে যোগ দিতে চলেছেন কলকাতার প্রাক্তন মেয়র তথা তৃণমূল কংগ্রেস নেতা শোভন চট্টোপাধ্যায় ও তাঁর বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়।

সর্বভারতীয় বিজেপি-র কোনও সাধারণ সম্পাদকের হাত থেকে গেরুয়া পতাকা হাতে নেবেন তিনি। এ ছাড়াও বিজেপি-র রাজ্য নেতৃত্বের তরফেও কোনও এক জন নেতা সেখানে উপস্থিত থাকতে পারেন। তবে রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ ওই সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত থাকবেন না। তিনি কলকাতায় রয়েছেন।

বিজেপি-র একটি সূত্রের খবর, এর অর্থ পরিষ্কার। বিজেপি-র রাজ্য নেতৃত্বের মারফৎ রফা করেননি শোভন-বৈশাখী। গেরুয়া শিবিরে যোগ দেওয়ার জন্য তাঁর ও বৈশাখীর আলোচনা হয়েছে বিজেপি-র একাধিক কেন্দ্রীয় নেতার সঙ্গে। সূত্রের খবর, এ ব্যাপারে বিজেপি সাধারণ সম্পাদক রাম মাধব ও দলের সংগঠনের দায়িত্বপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রামলালের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল। যে কারণে ইদানীং ঘন ঘন শোভন বৈশাখীকে দিল্লি যেতে দেখা গিয়েছে।

শোভন-বৈশাখীর বিজেপিতে যোগ দেওয়া নিয়ে বাংলা বাজারে চর্চা নতুন নয়। সেই যবে শোভন মেয়র পদ ছেড়েছিলেন তখন থেকেই চলছে। বারবার সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ পেয়েছে যে কখনও শোভন-বৈশাখী দিল্লিতে গিয়ে বিজেপি নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন, কখনও মুকুল রায়ের সঙ্গে মিটিং করেছেন। রহস্য বলতে বাকি ছিল কবে তাঁরা যোগ দিচ্ছেন বিজেপিতে। বা আদৌ যোগ দিচ্ছেন কিনা। সেই রহস্যেরও এ বার সমাধান হয়ে গেল। একধাপ এগিয়ে তাঁরা এও দাবি করছেন, বুধবার বিজেপিতে যোগ দিয়ে বৃহস্পতিবার লালকেল্লায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ভাষণ শুনে কলকাতায় ফিরবেন তাঁরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here