সৃজিতা শীল, কলকাতা:

মঙ্গলবার সকালে কলকাতা শহরে পা রাখলেন ‘টাইগার’।পাশে দেখা গেল বাবুল সুপ্রিয়কে।

আজ থেকে কলকাতা শহরে বসবে ‘সিনেমার মেলা’। প্রত্যেক বছরের মতো কলকাতায় শুরু হচ্ছে ২৯তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব । আর তারই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দিতে কলকাতায় হাজির হলেন বলি তারকা সলমন খান ৷

এতদিন মুখ্যমন্ত্রীর পাশে কলকাতা চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনী মঞ্চে জ্বলজ্বল করতেন শাহরুখ খান। দেখা যেতে অমিতাভ বচ্চনকেও। এই বছর ‘কিফ’-এ যখন এই দুই মহারথীই ব্যক্তিগত কারণে কিফ-কে না বলে দিয়েছেন তখন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কথা কিন্তু ফেরালেন না ভাইজান অর্থাৎ সলমন খান।

এতদিন মুখ্যমন্ত্রীর পাশে কলকাতা চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনী মঞ্চে জ্বলজ্বল করতেন শাহরুখ খান। দেখা যেতে অমিতাভ বচ্চনকেও। এই বছর ‘কিফ’-এ যখন এই দুই মহারথীই ব্যক্তিগত কারণে কিফ-কে না বলে দিয়েছেন তখন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কথা কিন্তু ফেরালেন না ভাইজান অর্থাৎ সলমন খান।

আজ অর্থাৎ মঙ্গলবার ২৯ তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের সূচনা। মুখ্যমন্ত্রী চেয়েছিলেন সলমন আসুক, তাঁর সেই চাওয়া পূর্ণ করতেই মঙ্গলবার ভোররাত্রেই সঙ্গীসাথী নিয়ে শহরে হাজির হলেন তিনি। এ দিন সকালে বিমানবন্দর থেকে বের হওয়ার সময়েই উপস্থিত সংবাদমাধ্যমের লেন্সবন্দী হন সলমন। সকলের উদ্দেশে হাত নাড়তেও দেখা যায় ভাইজানকে। মুখে হাসি নিয়েই তিনি যেন বললেন, ‘এক বার ম্যায়নে যো কমিটমেন্ট কর দিয়া, উসকে বাদ খুদকা ভি নহি শুনতা’। তাঁকে স্বাগত জানাতে হাজির ছিলেন মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়ও।

এতদিন শাহরুখই ছিলেন চোখের মণী। বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসডর হিসেবেও তাঁকেই বেছে নিয়েছিলেন মমতা। তবে এ বছরের মাঝামাঝি সমীকরণ যেন ঘুরতে শুরু করে। ‘দা-ব্যাং ট্যুর’-এ এই বছরেই শহরে আসেন সলমন খান আকাশনীল হাফ-হাতা শার্ট আর ডেনিম পরে মুখ্যমন্ত্রীর কালীঘাটের বাড়িতে তাঁকে দেখা করতেও দেখা গিয়েছিল। সলমনকেও আপ্যায়নের কোনও ত্রুটি রাখেননি মমতা। সেখানেই কিফে আসার প্রস্তাব দেওয়া হলে সলমন তখনই জানিয়েছিলেন তিনি চেষ্টা করবেন।

অবশেষে সেই চেষ্টারই বাস্তবায়ন। আর মাত্র কয়েক ঘণ্টার অপেক্ষা। এর পরেই মমতার পাশে দেখা যাবে সলমনের উজ্জ্বল উপস্থিতি। এ ছাড়াও হাজির থাকবেন টলিউড তো বটেই বলিউডেরও নামজাদারা।

প্রসঙ্গত, গত কয়েক বছরের মতো এবার, চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে থাকবেন না কিং খান। এই কথা শোনা গিয়েছিল আগেই। গত বছর ১৫ ডিসেম্বর, উদ্বোধন হয় কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের। সেবার ভাঙা ভাঙা বাংলায় শাহরুখ বলেন, ‘সবাইকে এই মঞ্চে দেখে খুব ভাল লাগছে। অনেকদিন দেখা হয়নি তো। আমার প্রিয় সুন্দর রানিকে দেখে খুব খুশি’। তার আগের ৩ বছর কলকাতায় আসতে পারেননি তিনি। সেই সময়ে পশ্চিমবঙ্গের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাস্যাডর হিসেবে শাহরুখ মনে করিয়ে দেন, কলকাতার মতো উষ্ণ অভ্যর্থনা হয়তো খুব কম জায়গাতেই পাওয়া যায়। কিন্তু সেই বাদশাহই এবার অনুপস্থিত থাকবেন মঞ্চ থেকে। অবশ্য মঞ্চ আলো করে উপস্থিত থাকবেন ‘টাইগার’। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here