অর্পিতা বনিক দেশের সময়

বনগাঁ : লোকসভা নির্বাচনে বনগাঁতে প্রতিটি বুথেই রাজ্য পুলিশের পাশাপাশি কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন থাকছে। শনিবারই জানিয়েছেন বনগাঁ পুলিশ জেলার সুপার দীনেশ কুমার। দেখুন ভিডিও

নির্বাচন কমিশনের নিয়ম অনুসারে ভোটগ্রহণ পর্ব শুরু হওয়ার তিন দিন আগে রাজ্য পুলিশ এবং কেন্দ্রীয় বাহিনীর কর্মীদের নির্বাচনের দিন কি ধরনের ভূমিকা থাকবে, তা বিশেষ বৈঠকের মাধ্যমে জানিয়ে দিলেন পুলিশ সুপার। শনিবার বিকেলে এই বৈঠক অনুষ্ঠিত হলো বনগাঁর নীলদর্পণে। 

বৈঠক শেষে পুলিশ সুপার সাংবাদিকদের জানান, ভোটের বেশ কিছুদিন আগে থেকেই বনগাঁ পুলিশ জেলায় দশ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী উপস্থিত হয়েছিলেন। তারা ইতিমধ্যেই রাতের বেলা বিভিন্ন পয়েন্টে রাজ্য পুলিশের সঙ্গে নাকা চেকিং করছেন।

এই ১০ কোম্পানি ছাড়াও বনগাঁ পুলিশ জেলায় ভোটের দিন আরও ৪৪ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন থাকছে। এর পাশাপাশি থাকছে ২০০০ রাজ্য পুলিশের বিভিন্ন স্তরের কর্মী।

বনগাঁ পুলিশ জেলায় কতগুলি স্পর্শকাতর বুথ রয়েছে, সেই প্রশ্নের সরাসরি উত্তর না দিলেও পুলিশ সুপার এব্যাপারে এদিন জানান, এই বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের কাছে বিস্তারিত রিপোর্ট পাঠানো হয়েছে। 

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, যেখানে একটি বা দুটি করে বুথ থাকছে, সেখানে চারজন করে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন থাকবে। দুইয়ের অধিক অর্থাৎ তিনটি বুথ হলে, সেখানে আটজন কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন থাকবে।

আর এভাবে বুথের সংখ্যা যত বাড়বে, সেই অনুযায়ী পর্যায়ক্রমে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েনের সংখ্যাও বাড়বে। এর সঙ্গে অবশ্যই থাকবেন রাজ্য পুলিশের কর্মীরা।

গোটা পুলিশ জেলায় ২২ টি নাকা পয়েন্ট করা হয়েছে। এছাড়াও ১১ টি সারপ্রাইজিং নাকা পয়েন্ট রয়েছে, যার মাধ্যমে সর্বক্ষণ নজরদারি এবং চেকিংয়ের কাজ চলছে।

পুলিশ জেলার পক্ষ থেকে একটি ডেডিকেটেড ফোন নম্বর এর ব্যবস্থা করা হয়েছে, যে নম্বরে ফোন করলে যে কোন ভোটার যেকোন সমস্যার কথা ফোন করে জানাতে পারবেন। এই ফোন নম্বরটি ২৪ ঘন্টা কার্যকরী থাকছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here