৭২ ঘণ্টার মধ্যে অনাস্থা প্রস্তাবের প্রক্রিয়া শুরু করতে হবে বনগাঁ পুরসভায়। সাত দিনের মধ্যে সেই প্রক্রিয়া শেষ করতে হবে। রাজ্য প্রশাসনকে এমনই নির্দেশ দিল কলকাতা হাইকোর্ট। বিজেপির মামলার প্রেক্ষিতে এই নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্টের বিচারপতি সমাপ্তি চট্টোপাধ্যায়

উল্লেখযোগ্য:

  • উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ পুরসভায় মোট কাউন্সিলর সংখ্যা ২২।
  • এরমধ্যে ১২ জন কাউন্সিলর সম্প্রতি তৃণমূল ছেড়ে বিজেপি-তে যোগ দেন।
  • বাকি ১০ জনের মধ্যে ১ জন নির্দল। অর্থাৎ সংখ্যাগরিষ্ঠতা এখন বিজেপি-র সঙ্গে।
  • দলবদল করেন বনগাঁর বিধায়ক বিশ্বজিৎ দাসও।

উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ পুরসভায় মোট কাউন্সিলর সংখ্যা ২২। এরমধ্যে ১২ জন কাউন্সিলর সম্প্রতি তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন। বাকি ১০ জনের মধ্যে ১ জন নির্দল। অর্থাৎ সংখ্যাগরিষ্ঠতা এখনও পর্যন্ত বিজেপির – সঙ্গে। দলবদল করেন বনগাঁ উত্তরের বিধায়ক বিশ্বজিৎ দাসও।
তবে ১২ কাউন্সিলর বিজেপি -তে যোগ দিলেও পুরবোর্ড গঠন করতে দিচ্ছে না রাজ্য সরকার। এই অভিযোগে হাইকোর্টে মামলা করেছিল বিরোধীরা। একই অভিযোগে রাজ্যপালের দ্বারস্থও হয়েছিলেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়।
বৃহস্পতিবার হাইকোর্ট জানিয়েছে, যে কোনও ৩ জন কাউন্সিলর অনাস্থা প্রক্রিয়া আনতে প্রস্তাব শুরু করতে পারবেন। যদিও এই নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারে রাজ্য সরকার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.