দেশের সময় ওয়েবডেস্কঃ নতুন বছরের প্রথম দিনের সকালেই বড় দুঃসংবাদ এল জম্মু কাশ্মীর (jammu kashmir) থেকে। জম্মুর মাতা বৈষ্ণো দেবী মন্দিরে (vaishno devi shrine) পুজো দেওয়ার জন্য ভক্তদের (devotees) ভিড়ে প্রবল ঠাসাঠাসি, ধাক্কাধাক্কির জেরে পদপিষ্ট হয়ে (stampede) মৃত্যু (death) হল কমপক্ষে ১২ পূণ্যার্থীর। ডজনের বেশি ভক্ত জখম হয়েছেন। ত্রিকূট পর্বতের মাথায় মন্দিরের গর্ভগৃহের বাইরে ঘটেছে এই মর্মান্তিক ঘটনা।আহতরা স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ঘটনায় শোকপ্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী।

ট্যুইটে মৃতদের পরিবারকে ২ লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আহতদের জন্য ৫০ হাজার টাকা ক্ষতিপূরণ ঘোষণা।

জম্মু সরকারের পক্ষ থেকে মৃতদের পরিবারকে ১০ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়। আহতদের দেওয়া হবে ২ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ। ঘটনার উচ্চপর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ঘটনায় শোকপ্রকাশ করেছেন অমিত শাহ, রাহুল গান্ধি।

মন্দির কর্তারা জানাচ্ছেন, অতিরিক্ত জনসমাগমের ফলেই পদপিষ্ট হয়েছেন ভক্তরা। নতুন বছরের সূচনা যাতে শুভ হয়, সেই প্রার্থনা নিয়ে পুজো দিতেই এসেছিলেন তাঁরা।  কিন্তু ঘটে গেল এক মর্মান্তিক বিপর্যয়। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ভিতরে ঢোকার পারমিশন স্লিপ ছাড়াই বৈষ্ণোদেবী ভবনে ঢুকে পড়েছিল কাতারে কাতারে লোক।

১২ জনের মৃত্যুর খবর সরকারি ভাবে সুনিশ্চিত করা হয়েছে।  জখম হয়েছেন অন্ততঃ ১৪ জন। তাঁদের বেশ কয়েকজনের অবস্থা সঙ্কটজনক বলে খবর। তাঁদের সবাইকে ভর্তি করা হয়েছে স্থানীয় হাসপাতালে।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জিতেন্দ্র সিং জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী স্বয়ং মাতা বৈষ্ণো  দেবী মন্দিরে ঘটে যাওয়া ভয়াবহ দুর্ঘটনার খবরাখবর নিচ্ছেন, পরিস্থিতির ওপর নজর রাখছেন। জম্মুর  নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিও  কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।  প্রধানমন্ত্রী স্বজন হারানো শোকার্ত পরিবারগুলির প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন, আহতদের সব ধরনের চিকিৎসা পরিষেবার বন্দোবস্ত করার নির্দেশ দিয়েছেন বলে  জানান জিতেন্দ্র।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here